• ঢাকা
  • শনিবার, ০২ মার্চ, ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০, ২০ শা’বান ১৪৪৫

বিশ্বের পথিকৃৎ বাঁহাতি মানুষেরা


সংবাদ প্রকাশ ডেস্ক
প্রকাশিত: আগস্ট ১৪, ২০২৩, ০৫:০৮ পিএম
বিশ্বের পথিকৃৎ বাঁহাতি মানুষেরা

পৃথিবীতে ডানহাতি মানুষের সংখ্যা বেশি। তবে বাঁ হাত দিয়েই বিশ্ব জয় করেছেন, এমন মানুষদেরও আমরা জানি। গবেষকদের মতে, পৃথিবীতে ৮০ থেকে ৯০ ভাগ মানুষই ডানহাতি। আর মাত্র ১০ ভাগ লোক বাঁ-হাতি। আর এই ডানহাতিদের সংখ্যা বেশি হওয়ায় বাঁহাতি এই ১০ ভাগের মূল্যায়ন যে কম হয়, তার বড় প্রমাণ হলো কম্পিউটারের মাউস থেকে শুরু করে আলমারির হাতল পর্যন্ত। এসব জিনিস ডানহাতি ব্যবহারকারীদের উপযোগী করে তৈরি। ফলে বাঁহাতি মানুষদের নানা ধরনের সমস্যায় পড়তে হয় কাজ করতে গিয়ে। আবার বাঁহাতি হওয়ারও অনেক সুবিধা আছে। গবেষণায় দেখা গেছে, বাঁহাতিদের ডান পাশের মস্তিষ্ক বেশি ব্যবহৃত হয়। এ জন্যই সাধারণত বাঁহাতিরা বেশি উদ্ভাবনী ক্ষমতাসম্পন্ন হয়ে থাকে। কারণ, বাঁহাতিরা মস্তিষ্কের ডান প্রকোষ্ঠের ব্যবহার বেশি করেন, যেখানে যুক্তি, কারণ ও সৃজনশীলতার বিষয়গুলো প্রক্রিয়াকরণ করা হয়। তেমনই বিশ্বের বিখ্যাত কজন বাঁহাতির নাম তুলে ধরা হলো।

শচীন টেন্ডুলকার
ভারতীয় ক্রিকেটের মাস্টার ব্লাস্টার শচীনও একজন বাঁ-হাতি। বাঁ হাতের জাদুতেই ক্রিকেট দুনিয়া মাতিয়েছিলেন তিনি। একের পর এক রেকর্ডও করেছেন বাঁ হাতে। এই বিশেষ দিনে শচীন টুইট করে বলেছেন, “আমি বাঁহাতি হতে পারি কিন্তু সব সময় সঠিক”।

অমিতাভ বচ্চন
বাঁ-হাতি তালিকায় রয়েছেন অভিনেতা অমিতাভ বচ্চন। দাদা সাহেব ফালকে সম্মানপ্রাপ্ত লিভিং লিজেন্ড একাধিক সিনেমায় বাঁ হাতের ব্যবহার দেখিয়েছেন, যা প্রশংসা কুড়িয়েছে অনুরাগীদের।

বিল গেটস
মাইক্রোসফটের প্রতিষ্ঠা বিল গেটসও একজন বাঁ-হাতি ক্লাবের সদস্য। বিশ্বের চতুর্থতম ধনী ব্যক্তি তিনি।

 

মার্ক জাকারবার্গ
ফেসবুকের প্রতিষ্ঠাতা মার্ক জাকারবার্গও বাঁহাতি ক্লাবের গুরুত্বপূর্ণ সদস্য। বিশ্ব ধনীর তালিকায় তিনি পঞ্চম।

 

স্টিভ জবস
অ্যাপেলের প্রতিষ্ঠাতা স্টিভ জবসও বাঁহাতি। আইটি ওয়ার্ল্ডে তিনি একজন গুরু হিসেবেই খ্যাত।

মার্ক টোয়েন
তার আসল নাম স্যামুয়েল ল্যাংহর্ন ক্লিমেন্স। তিনি ছিলেন একজন মার্কিন রম্য লেখক, সাহিত্যিক ও শিক্ষক। তার রম্যবোধ আর চপলবুদ্ধি ছিল তীক্ষ্ণ, এবং তিনি জনসমক্ষেও ছিলেন ভীষণ জনপ্রিয়। এখনো তার রম্য রচনা তাকে বিখ্যাত করে রেখেছে বিশ্বে। এই বিখ্যাত মানুষটিও ছিলেন বাঁহাতি।

অপরা উইনফ্রে
হোস্ট হিসেবেই তাকে বিশ্ব চেনে। সবচেয়ে বেশি টক শোর সঞ্চালক উইনফ্রেকে মিডিয়া সাম্রাজ্যের রানি হিসেবেই স্বীকৃত দিয়েছে বিশ্ববাসী। দরিদ্র পরিবারে জন্ম নেওয়া উইনফ্রে বিশ শকতের সব থেকে ধনী আফ্রো-আমেরিকান।

রতন টাটা
বিশ্বের অন্যতম বিখ্যাত গাড়ি নির্মাতা সংস্থা টাটার প্রতিষ্ঠাতা রতন টাটা বাঁহাতি। বাঁহাতি মানুষদের জন্য তিনি একটি বিশেষ স্কলারশিপও তৈরি করেছিলেন।

এ ছাড়া আরও আছেন নিকোলা টেসলা, ব্রায়ান লারা, ওয়াসিম আকরাম, রাফায়েল নাদাল, ডেভিড গাওয়ার, হেলেন কেলার, লেডি গাগা, লুইস ক্যারল। যাদের পরিচয় নতুন করে দেওয়ার কিছু নেই। তারা নিজেদের প্রতিভা এবং কাজে বিখ্যাত হয়ে আছেন, তারা সবাই বাঁহাতি। এ ছাড়া রাজা ষষ্ঠ জর্জ, প্রিন্স উইলিয়াম, প্রিন্স জর্জ, প্রেসিডেন্ট জেমস গারফিল্ড, প্রেসিডেন্ট হার্বার্ট হুভার, প্রেসিডেন্ট হ্যারি এস ট্রুম্যান, এমনকি ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিও বাঁহাতি।

সূত্র : টাইমস অব ইন্ডিয়া

Link copied!