• ঢাকা
  • শুক্রবার, ২৪ মে, ২০২৪, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ১৬ জ্বিলকদ ১৪৪৫

গরমে বরফশীতল পানি খেলে যে ক্ষতি


সংবাদ প্রকাশ ডেস্ক
প্রকাশিত: এপ্রিল ১৮, ২০২৩, ০৩:২৫ পিএম
গরমে বরফশীতল পানি খেলে যে ক্ষতি

তীব্র গরমে বাইরে থেকে ফিরেই সবার আগে ঢকঢক করে এক গ্লাস ঠান্ডা পানি খেয়ে নিতে ইচ্ছে করে। কিন্তু গরমে ঠান্ডা পানি পান করলে শরীরে মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে, বলছেন বিশেষজ্ঞরা। চলুন জেনে নিই গরমে ঠান্ডা পানি খাওয়ার অপকারিতা।

হৃৎস্পন্দন
গরমে ঠান্ডা পানি পান করলে হৃৎস্পন্দন কমে যেতে পারে। তাইওয়ানের একটি গবেষণায় দেখা গেছে , ঠান্ডা পানি পান করা হার্টের জন্য খুবই ক্ষতিকর। তাই বিপদ থেকে বাঁচতে হলে গরমে ঠান্ডা পানি পান করা যাবে না। যাদের হার্টের সমস্যা রয়েছে, তারা ঠান্ডা পানি পুরোপুরি এড়িয়ে চলবেন।

পরিপাকতন্ত্র
বিভিন্ন গবেষণায় উঠে এসেছে, ঠান্ডা পানি পান করলে পরিপাকতন্ত্র ক্ষতিগ্রস্ত হয়। একটু খেয়াল করলে দেখা যায় যে যখন হালকা গরম পানি দিয়ে মুখ পরিষ্কার করা হয় তখন ত্বকের ছিদ্র খুলে গিয়ে ত্বক আলগা হয়ে যায়। অন্যদিকে ঠান্ডা পানিতে মুখ পরিষ্কার করলে মুখের ত্বক টানটান হয়ে যায়। এতেই বোঝা যায় ঠান্ডা পানি পান করলে পরিপাকতন্ত্র কতটা সংকুচিত হয়।

কোষ্ঠকাঠিন্য
ভালো হজম কিংবা পেট পরিষ্কার না হলে শরীরে অসুখ বাসা বাঁধতে সময় নেয় না। কোষ্ঠকাঠিন্য হলে নানা সমস্যা শুরু হয়ে যায় আমাদের শরীরে। আর কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যা বাড়িয়ে দিতে পারে ঠান্ডা পানি। কারণ, অতিরিক্ত ঠান্ডা পানি পান করলে যেকোনো খাবার হজম করা শরীরের জন্য কঠিন হয়ে পড়ে। এমন অবস্থায় বেড়ে যায় কোষ্ঠকাঠিন্যের ঝুঁকি।

মাথাব্যথা
আপনার মাথাব্যথাকে আরও বাড়িয়ে দিতে পারে ঠান্ডা পানি পানের অভ্যাস। বরফ মুখে দিলে দেখবেন খাওয়ার সময় কপালে চিনচিনে ব্যথা বোধ করছেন। একইভাবে ঠান্ডা পানি পান করলে মাথার ওপর প্রভাব ফেলতে পারে। ঠান্ডা পানি আমাদের সংবেদনশীল স্নায়ুগুলোকে ঠান্ডা করে এবং দ্রুত মাথায় বার্তা পাঠায়। যে কারণে শুরু হয় মাথাব্যথা।


তাই সাময়িক প্রশান্তির জন্য গরমে ঠান্ডা পানি পান করে নিজের শরীরকে অসুস্থ না করাই ভালো।

Link copied!