• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ২৮ মে, ২০২৪, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ১৯ জ্বিলকদ ১৪৪৫

আমদানির পর কমলো পেঁয়াজের দাম


সংবাদ প্রকাশ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: জুন ৬, ২০২৩, ০৭:৪৩ পিএম
আমদানির পর কমলো পেঁয়াজের দাম

দেশের তিনটি স্থলবন্দর দিয়ে আমদানির পর রাজধানীর বাজারগুলোতে দাম কমতে শুরু করেছে পেঁয়াজের। এতে ক্রেতাদের চোখে-মুখে স্বস্তি দেখা গেলেও ভাঁজ পড়েছে বিক্রেতাদের কপালে।

জানা গেছে, সোমবার (৬ জুন) রাতে তিনটি স্থলবন্দর দিয়ে দেশে ভারতীয় পেঁয়াজ ঢুকেছে। ভারত থেকে পেঁয়াজ আসার খবরে ইতোমধ্যে ঢাকার বাজারগুলোতে দাম কমতে শুরু করেছে। ফলে ক্রেতার চোখে-মুখে স্বস্তি দেখা গেছে।

মঙ্গলবার (৬ জুন) রাজধানীর কারওয়ান বাজার ঘুরে দেখা যায় প্রতি কেজি পেঁয়াজ আগের তুলনায় ২০ থেকে ২৫ টাকা কমে বিক্রি হচ্ছে। রোববার (৪ জুন) সকালে যে পেঁয়াজ ৯০ থেকে ১০০ টাকায় বিক্রি হয়েছে। সেটি আজ বিক্রি হচ্ছে ৭০ থেকে ৮০ টাকায়।

তবে পেঁয়াজের দাম কোনোভাবেই ৩০ টাকার বেশি হওয়া উচিত নয় বলে দাবি করেছেন নিয়াজ আহমেদ নামের এক ক্রেতা। তিনি বলেন, “আমাদের তো কখনোই পেঁয়াজের ক্রাইসিস ছিল না। ব্যবসায়ীদের সিন্ডিকেটের কারণেই পেঁয়াজের দামটা বেড়েছে। আমদানির খবরে দাম কমেছে বলে ৫ কেজি নিলাম ৩৫০ টাকায়। দামটা আরও কমানো দরকার।”

এদিকে পেঁয়াজ ব্যবসায় লোকশান হচ্ছে দাবি করে কারওয়ান বাজারের ব্যবসায়ী ময়না বলেন, “একদিনে দেড় লাখ টাকার লোকশান হয়েছে। ৭৫ কেজি ওজনের ১৪০টা বস্তা কিনেছিলাম। এর মধ্যে চালান দামে ৩০ থেকে ৩২টা বস্তা বিক্রি করতে পারছি। আজকে যা বিক্রি করছি সেখানে প্রতি কেজিতে ২২ টাকা লোকশান হচ্ছে।”

রুবেল মিয়া নামের এক ব্যবসায়ী বলেন, “৯৫ টাকায় কেনা পেঁয়াজ বিক্রি করতে হচ্ছে ৮০ টাকায়। এরই মধ্যে দাম কমতে শুরু করেছে বলে ক্রেতারাও কম নিচ্ছে।”

এ দিকে আমদানি করা ভারতীয় পেঁয়াজ এখনো কারওয়ান বাজারে আসেনি বলে জানিয়েছেন ব্যবসায়ীরা। তবে শ্যামবাজারে যে পেঁয়াজ এসেছে তার বেশিরভাগই পচা বলে জানান তারা।

Link copied!