• ঢাকা
  • শনিবার, ০২ মার্চ, ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০, ২০ শা’বান ১৪৪৫

ইলিশের কেজি ৪০০ টাকা


বরগুনা প্রতিনিধি
প্রকাশিত: আগস্ট ১৯, ২০২৩, ০৭:০৭ পিএম
ইলিশের কেজি ৪০০ টাকা

বরগুনা উপকূলে জেলেদের জালে ধরা পড়ছে ঝাঁকে ঝাঁকে রুপালি ইলিশ। গত কয়েকদিন ধরে জেলেদের জালে ভালো পরিমাণ ইলিশ আসছে। এতে ক্রেতা-বিক্রেতাদের হাঁকডাকে বেশ গরম পৌর মাছ বাজার। ছোট সাইজের ইলিশ বিক্রি হচ্ছে ৪০০ টাকা কেজি।

শনিবার (১৯ আগস্ট) বিকালে বরগুনা ওর মাছ বাজারে খুচরা বিক্রেতারা এই দামে ইলিশ বিক্রি করতে দেখা যায়।

সরেজমিনে দেখা যায়, সকাল থেকে ইলিশ ৫০০-৬০০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। বাজারে মোটামুটি মাছ সরবরাহ বেড়েছে। রাতে মাছ আরও আসতে পারে। তাই খুচরা বাজারের মাছগুলো কম দামে বিক্রি করছেন ব্যবসায়ীরা।

ক্রেতা মহসিন রেজা বলেন, “চিংড়ি মাছ কিনতে এসেছিলাম বাজারে। এসে দেখি কম দামে ইলিশ বিক্রি হচ্ছে। তাই দুই কেজি কিনলাম ৮০০ টাকায়। অনেকদিন পরে কম দামে ইলিশ কিনতে পেরে ভালো লাগল। আমার মনে হয় এগুলো জাটকা ইলিশ না। দুই কেজি ইলিশে আমি ৭টা মাছ পেয়েছি। মাছগুলো বরফ দেওয়া ছিল। তাই হয়তো দাম কম রেখেছে। ছোট সাইজের ইলিশের দাম কম হলেও বড় সাইজের ইলিশের দাম অনেক বেশি। ১ কেজি ওজনের ইলিশের দাম দুই হাজার টাকায় বিক্রি হয়েছে। বড় ইলিশ কেনার সামর্থ্য নাই। তাই ছোট ইলিশ নিয়েই সন্তুষ্ট।”

বরগুনা পৌর মাছ বাজার ব্যবসায়িক সমিতির সভাপতি মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম বলেন, “আমাদের বাজারে যেসব ইলিশ মাছ পাওয়া যায় সবগুলোই স্থানীয় নদীর মাছ। এই বাজারে নদীর ইলিশের চাহিদা প্রচুর। গত দুই দিন ধরে সরবরাহ মোটামুটি ভালো।”

জেলা মৎস্য কর্মকর্তা বিশ্বজিৎ কুমার দেব বলেন, “বাজারে কম দামে যে ছোট সাইজের ইলিশ পাওয়া যায়, এগুলো জাটকা না। বাজারে মাছের সরবরাহ বেশি থাকলে দাম কম থাকে, এটাই স্বাভাবিক। বঙ্গোপসাগরে প্রচুর ইলিশ মাছ ধরা পড়ছে। দু-একদিনের ভেতর মাছগুলো ঘাটে এসে পৌঁছাবে। আগামী দিনগুলোতে মাছের দাম আরও কমবে বলে আশা করি।”

Link copied!