• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই, ২০২৪, ১ শ্রাবণ ১৪৩১, ১০ মুহররম ১৪৪৫
রাজনৈতিক অবস্থান নিয়ে প্রশ্ন

ছাত্রলীগ নেতার ফেসবুকে লেখা নৌকা বিরোধী বক্তব্য


সাতক্ষীরা প্রতিনিধি
প্রকাশিত: এপ্রিল ৩০, ২০২২, ০৭:৫৭ পিএম
ছাত্রলীগ নেতার ফেসবুকে লেখা নৌকা বিরোধী বক্তব্য

বাংলাদেশ ছাত্রলীগ সাতক্ষীরা সদর উপজেলা শাখার আংশিক কমিটি অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি এসএম আশিকুর রহমান ও সাধারণ সম্পাদক মো. সুমন হোসেন স্বাক্ষরিত এক পত্রে রাজিব ইমরানকে সভাপতি ও হাছানুর জামানকে সাধারণ সম্পাদক করে এই কমিটির অনুমোদন দেওয়া হয়।

তবে, বৃহস্পতিবার (২৮ এপ্রিল) অনুমোদন দেওয়া হলেও বিষয়টি শুক্রবার প্রকাশ পায়। আর প্রকাশ পাওয়ার পরই বেরিয়ে এসেছে বেশ কিছু চাঞ্চল্যকর তথ্য। বিশেষ করে সদ্য অনুমোদিত এই কমিটির সভাপতি রাজিব ইমরানের রাজনৈতিক অবস্থান নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। সদর উপজেলা ছাত্রলীগে অপরিচিত মুখ রাজিব ইমরানের ব্যক্তিগত ফেসবুক প্রোফাইল ঘেটে রীতিমত বিস্মিত হয়েছেন অনেকেই।

 

২০১৩ সালের ৩০ ডিসেম্বর রাজিব ইমরান তার ব্যক্তিগত প্রোফাইলে  (https://web.facebook.com/rajib.spi) দা হাতে একটি শিশুর ছবি পোস্ট করেছেন। যেখানে লেখা আছে, “আমি লেংটা মনির, নৌকায় ভোট চাইতে আইলে ঠ্যাং কাইট্টা রাইখা দিমু।”

২০১৪ সালের ৪ জানুয়ারি তিনি তার প্রোফাইলে আরও একটি ছবি পোস্ট করেছেন। যেখানে ২০১৪ সালের দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচন নিয়ে লেখা আছে, “হালার-পো হালা, আজ তোর একদিন, কি আমার একদিন! ভোট না দিয়ে যাবি কৈ?”

২০১৮ সালের ৬ আগস্ট তিনি তার প্রোফাইলে একটি স্ট্যাটাসে লিখেছেন, “কাদের সাহেব, যারা হেলমেট পড়ে বা মুখ ডেকে ছাত্রদের মারধর করে এবং লাঠি, চাপাতি নিয়ে পুলিশের সাথে ঘুড়ে বেড়ায় তাদেরকে কি বিএনপি জামাত শিবির বলে, আপনার চাইতে মখা ভাল ছিলো।”

২০১৮ সালের ৮ আগস্ট তিনি তার প্রোফাইলে একটি স্ট্যাটাসে লিখেছেন, “মেজর অব শাহ আলম যা বলছিলেন সেটা এখন আমাদের কাছে পরিষ্কার,  Make yourself prepared be stronger,    অনেক অস্র দেবো পরিশিক্ষণ হবে,  prepared to remain ready to fight our common enymy. ce ce ce hasina lojjai বাচিনা।”

 

আর ছাত্রলীগের কমিটিতে সভাপতি পদ পাওয়ার পর ৩০ এপ্রিল প্রথম প্রহরে তিনি তার প্রোফাইলে জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সুমন হোসেনের সঙ্গে একটি ছবি পোস্ট করে লিখেছেন, “আলহামদুলিল্লাহ, ধন্যবাদ দিলে আপনাকে ছোট করা হবে ভাই, অনেক আগে থেকে আপনার সাথে আমার পরিচয়, সব সময় নিজের ছোট ভাইয়ের মত ভালবাসা দিয়েছেন, ভুলগুলো সব সময় ধরায় দিবেন, আর যে দায়িত্ব আমাকে দিয়েছেন তার সঠিক ব্যবহার যেন করতে পারি তার জন্য দোয়া করবেন।”

কাকে দেওয়া হলো সদর উপজেলা ছাত্রলীগের পদ এমন প্রশ্ন এখন দলের ত্যাগী নেতাকর্মীদের মুখে।

তবে, এ বিষয়ে জানার জন্য জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আশিকুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক সুমন হোসেন ও সদর উপজেলা ছাত্রলীগের সদ্য অনুমোদিত কমিটির সভাপতি রাজিব ইমরানের সঙ্গে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করেও তাদের বক্তব্য পাওয়া যায়নি।
 

Link copied!