• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন, ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ৭ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৫
আপত্তিকর মন্তব্য

নেটফ্লিক্সকে চিঠি পাঠাল বিজিএমইএ


সংবাদ প্রকাশ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: আগস্ট ৯, ২০২১, ০৩:৩১ পিএম
নেটফ্লিক্সকে চিঠি পাঠাল বিজিএমইএ

নেটফ্লিক্সে গত ৩১ জুলাই মুক্তি পেয়েছে ভ্যান ড্যাম পরিচালিত ‘দ্য লাস্ট মার্সেনারি’ সিনেমাটি। ইতিমধ্যে জনপ্রিয় ছবির তালিকায় ঢুকে পড়েছে সিনেমাটি। তবে এই ছবিতে বাংলাদেশি পণ্যের নামে বিষোদগার করা হয়েছে, যার প্রমাণ মিলেছে ছবির সংলাপে।

একজন অভিনয়শিল্পী বলছেন, “হ্যাঁ, এটা বুলেটপ্রুফ।” প্রত্যুত্তরে আরেকজন বলেন, “এটা মেড ইন ফ্রান্স। তবে যদি এটি বাংলাদেশ থেকে আসে তাহলে আমি ধ্বংস হয়ে যাব।”

এই সংলাপের মাধ্যমে বাংলাদেশের পোশাক খাত সম্পর্কে বিশ্বের মানুষের কাছে নেতিবাচক ধারণা তৈরি হবে বলে মনে করেন বাংলাদেশ পোশাক প্রস্তুতকারক ও রপ্তানিকারক সমিতির (বিজিএমইএ) সভাপতি ফারুক হাসান। সিনেমার ওই আপত্তির সংলাপের দৃশ্যটি বাদ দিতে নেটফ্লিক্সের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) টেড স্যারান্ডোস বরাবর চিঠি পাঠিয়েছেন তিনি।

নেটফ্লিক্সে বাংলাদেশ নিয়ে বিরূপ মন্তব্য

রোববার (৮ আগস্ট) পাঠানো ওই চিঠিতে বিজিএমইএ সভাপতি উল্লেখ করেন, “গত ৩১ জুলাই মুক্তি পাওয়া ডেভিড চারহন পরিচালিত ফরাসি সিনেমা ‘লাস্ট মার্সেনারি’তে ‘মেড ইন বাংলাদেশ’ গার্মেন্টস নিয়ে অসম্মানজনক ও অবমাননাকর মন্তব্য করা হয়। চলচ্চিত্রটিতে বলা হয়, ‘হ্যাঁ, বুলেটপ্রুফ টাক্সেডো, মেড ইন ফ্রান্স। এটা বাংলাদেশে হলে আমি বোধহয় মারাই যেতাম’—এমন মন্তব্যের মাধ্যমে বাংলাদেশে তৈরি পোশাক খাতে নিরলস খেটে যাওয়া ৪০ লাখ শ্রমিকের শ্রম, অবদান ও গুণ-মানকে অসম্মান করা হয়েছে। সিনেমাটি থেকে ওই দৃশ্যটি বাদ দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছি তাদের।”

ফ্রেঞ্চ ভাষার এই ছবিটি নির্মাণ করেছেন ডেভিড চারহন। ছবির দৈর্ঘ্য ১ ঘন্টা ৫০ মিনিট। এদিকে ছবিতে বাংলাদেশকে নিয়ে বিরূপ সংলাপ ব্যবহার করায় এখনো নেটফ্লিক্সের তরফ থেকে কোনো প্রতিক্রিয়া জানানো হয়নি।

Link copied!