• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল, ২০২৪, ৩ বৈশাখ ১৪৩১, ৬ শাওয়াল ১৪৪৫

তরুণীকে আটকে রেখে ধর্ষণ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা গ্রেপ্তার


সিলেট প্রতিনিধি
প্রকাশিত: এপ্রিল ২, ২০২৪, ০৭:২৯ পিএম
তরুণীকে আটকে রেখে ধর্ষণ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা গ্রেপ্তার
মঙ্গলবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলন করে র‍্যাব-৯

সিলেটে এক তরুণীকে (১৮) আড়াই মাস আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগে করা মামলার প্রধান আসামি স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা আবদুস সালামকে (৪০) গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব। সোমবার (১ এপ্রিল) রাত আড়াইটার দিকে গোলাপগঞ্জ উপজেলা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

মঙ্গলবার (২ এপ্রিল) দুপুরে সিলেটে র‍্যাবের সদর দপ্তরে সংবাদ সম্মেলন করে এ তথ্য জানান র‍্যাব-৯–এর অধিনায়ক মো. মোমিনুল হক।

গ্রেপ্তার আবদুস সালাম সিলেট নগরের লালদিঘিরপাড় এলাকার আবদুর রহিমের ছেলে এবং সিটি করপোরেশনের ১১ নম্বর ওয়ার্ড স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি।

এর আগে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠার পর রোববার সংগঠন থেকে  আবদুস সালামকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে র‍্যাব–৯-এর অধিনায়ক মো. মোমিনুল হক বলেন, ভালো কাজ পাইয়ে দেওয়ার কথা বলে এক তরুণীকে একাধিকবার আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগ আছে আবদুস সালামের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় সিলেটের কোতোয়ালি থানায় মামলা করেন ওই তরুণীর মা। গতকাল রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে গোলাপগঞ্জে অভিযান চালিয়ে প্রধান অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ ঘটনায় অন্য আসামিদেরও গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত আছে।

এর আগে গত ৭ জানুয়ারি থেকে প্রায় আড়াই মাস ওই তরুণীকে আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠে স্বেচ্ছাসেবক লীগের দুই নেতার বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় গত শুক্রবার রাতে ভুক্তভোগী তরুণীর মা বাদী হয়ে ওয়ার্ড স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি আবদুস সালাম ও মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সদস্য আবদুল মনাফ (৩৮) ও রেখা বেগম নামের এক নারীর নাম উল্লেখ করে থানায় একটি মামলা করেছেন। মামলায় অজ্ঞাতনামা আরও দুই থেকে তিনজনকে আসামি করা হয়েছে।

Link copied!