• ঢাকা
  • শনিবার, ১৮ মে, ২০২৪, ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১,

নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে ইয়ুথ ক্লাইমেট জাস্টিস কর্মশালা


নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে ইয়ুথ ক্লাইমেট জাস্টিস কর্মশালা

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ইয়ুথ ক্লাইমেট জাস্টিস কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সোমবার (২২ মে) সকালে ‘সিরাক বাংলাদেশে’র আয়োজনে বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারে এই কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়।

জলবায়ু ন্যায়বিচারে তরুণদের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা অন্বেষণ করার লক্ষ্যে অনুষ্ঠিত এই কর্মশালায় জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের ৫০ জন শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে।

সিরাক বাংলাদেশের প্রোগ্রাম ডিরেক্টর মিজানুর রহমানের সঞ্চালনায় কর্মশালায় প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন এনভায়রনমেন্ট সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মো. আলিম মিয়া।

কর্মশালায় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র পরামর্শ ও নির্দেশনা দপ্তরের পরিচালক অধ্যাপক ড. তপন কুমার সরকার, ফোকলোর বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মো. বাকী বিল্লাহ (সাকার মোস্তফা), সেরাক বাংলাদেশের কমিউনিকেশন অ্যান্ড আউটরিচ অফিসার মিংগি মুন, হেনা, সিওইউন, হায়ারইয়াং চু, ক্যাম্পাস কো-অর্ডিনেটর ও সিরাক বাংলাদেশের ময়মনসিংহ বিভাগীয় স্বেচ্ছাসেবক রবিউল ইসলাম।

কর্মশালায় অংশগ্রহণকারী তাজীম আহম্মাদ বলেন, পরিবেশগত দৃষ্টিকোণ থেকে জলবায়ু পরিবর্তনে যুবদের ভূমিকা সম্পর্কে কর্মশালায় আলোচনা হয়েছে। জলবায়ু সম্পর্কিত মনোভাবে উপস্থিত যুবদের দলগত উপস্থাপন ও গেমিং সেশনের মাধ্যমে কর্মশালাটি বেশ উপভোগ্য ছিল। আমরা বাংলাদেশ ও দক্ষিণ কোরিয়ার জলবায়ু সম্পর্কে বিস্তারিত জেনেছি। এত সুন্দর ও গোছালো আয়োজনের জন্য সিরাক বাংলাদেশকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।“

সিরাক বাংলাদেশের ময়মনসিংহ বিভাগীয় স্বেচ্ছাসেবক রবিউল ইসলাম বলেন, “সিরাক বাংলাদেশের আয়োজনে ক্লাইমেট জাস্টিজ কর্মশালাটি শিক্ষণীয় ছিল। প্রধান বক্তা ও দক্ষিণ কোরিয়া হতে আগত চারজন প্রশিক্ষক সহজ ও সাবলীলভাবে বিভিন্ন বিষয় উপস্থাপন করেছেন। বাংলাদেশ ও কোরিয়ার সামগ্রিক জলবায়ুর মধ্যে তুলনা ও সম্পর্ক স্থাপন করে কীভাবে বৈশ্বিক জলবায়ুকে ধংসের হাত থেকে রক্ষা করতে পারি এ বিষয়টি ব্যতিক্রম ছিল।”

সিরাক বাংলাদেশের প্রোগ্রাম ডিরেক্টর মিজানুর রহমান বলেন, সিরাক বাংলাদেশ তরুণ প্রজন্মকে সঙ্গে নিয়ে এসআরএইচআর ও জলবায়ুকে প্রাধান্য দিয়ে কাজ করে যাচ্ছে। এরই ধারাবাহিকতায় নজরুল ক্যাম্পাসে আমাদের এই আয়োজন। সন্মানিত অতিথি ও  অংশগ্রহণকারী সকলে মিলে ওয়ার্কশপটি শিক্ষণীয় ও উপভোগ্য করে তুলেছে। সবাই খুবই আগ্রহী ও উৎসুক ছিল। বিদেশি ৪ সদস্যের দলকে তারা সাদরে গ্রহণ করে নিয়েছে। আমরা চাই এই প্রোগ্রামের মত জলবায়ু রক্ষার্থে সবাই এগিয়ে আসুক।”

কর্মশালা শেষে অংশগ্রহণকারীদের সনদ প্রদান করা হয়।

শিক্ষা বিভাগের আরো খবর

Link copied!