• ঢাকা
  • রবিবার, ২১ জুলাই, ২০২৪, ৬ শ্রাবণ ১৪৩১, ১৪ মুহররম ১৪৪৫

যৌতুকের টাকা না পাওয়ায় স্ত্রীকে হত্যার অভিযোগ


জামালপুর প্রতিনিধি
প্রকাশিত: মে ২১, ২০২২, ০৫:৫৬ পিএম
যৌতুকের টাকা না পাওয়ায় স্ত্রীকে হত্যার অভিযোগ

জামালপুরের দেওয়ানগঞ্জে যৌতুকের টাকা না পাওয়ায় রিনা আক্তার (২২) নামের এক গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় স্বামী ছানা মিয়ার বিরুদ্ধে মামলা করেছে নিহতের পরিবার।  

বৃহস্পতিবার (১৯ মে) রাতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা যান রিনা আক্রার। ময়নাতদন্ত শেষে তার বাবার বাড়িতে দাফন সম্পন্ন হয়েছে। নিহত রিনা আক্তার উপজেলার বাহাদুরাবাদ ইউনিয়নের পোল্লাকান্দি গ্রামের আনছার আলীর মেয়ে।

আনছার আলী জানান, ১০ বছর আগে একই গ্রামের আব্দুল মজিদ মিয়ার ছেলে ছানা মিয়ার সঙ্গে তার মেয়ে রিনা আক্তারের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকেই যৌতুকের জন্য রিনাকে স্বামী ও তার পরিবার নির্যাতন করছিল। মেয়ের নির্যাতনের বিষয়টি টের পেয়ে স্বামী ছানা মিয়াকে ৭০ হাজার টাকা দেওয়া হয়। কিন্তু কিছুদিন পর রিনাকে আবার দুই লাখ টাকা দেওয়ার জন্য চাপ সৃষ্টি  করে ছানা মিয়া। টাকা না দেওয়ায় গত বুধবার রাতে স্বামী ছানা মিয়াসহ তার পরিবারের অন্য সদস্যরা মিলে নির্যাতন শুরু করে। এতে রিনা গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন।

ঘটনার পর স্থানীয়রা রিনাকে উদ্ধার করে প্রথমে দেওয়ানগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠান। এরপর বৃহস্পতিবার রাতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রিনা মারা যান। ময়নাতদন্ত শেষে শনিবার (২১ মে) সকালে তার দাফন সম্পন্ন হয়।

এ ঘটনায় আনছার আলী বাদী হয়ে দেওয়ানগঞ্জ মডেল থানায় মামলা করেছেন।

দেওয়ানগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ মহব্বত কবীর বলেন, “রিনা আক্তারকে নির্যাতন করে মারা হয়েছে বলে আমরা অভিযোগ পেয়েছি। মামলার আসামিদের গ্রেপ্তার অভিযান চলছে।”

স্বদেশ বিভাগের আরো খবর

Link copied!