• ঢাকা
  • বুধবার, ২৪ জুলাই, ২০২৪, ৯ শ্রাবণ ১৪৩১, ১৮ মুহররম ১৪৪৫

চার সাংবাদিকের ওপর আ. লীগ নেতার ছেলের হামলা


লালমনিরহাট প্রতিনিধি
প্রকাশিত: আগস্ট ১৩, ২০২২, ১২:১৯ পিএম
চার সাংবাদিকের ওপর আ. লীগ নেতার ছেলের হামলা

লালমনিরহাটে সংবাদ সংগ্রহকালে চার সাংবাদিক হামলা শিকার হয়েছেন। শুক্রবার (১২ আগস্ট) বিকেল ৫টার দিকে তাদের ওপর হামলা চালিয়েছেন ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের এক নেতার ছেলে ও তার সহযোগীরা।

হামলার শিকার সাংবাদিকরা জানান, সদর উপজেলার পঞ্চপুকুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি হাফিজুর রহমান মণ্ডলের ছেলে সুলতান মণ্ডল সম্প্রতি দুই সন্তানের মা এক নারীকে বিয়ে করেন। তিনি নিজেও দুই সন্তানের জনক। এ ঘটনার জেরে বুধবার (১০ আগস্ট) তার প্রথম স্ত্রী বিষপান করে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। এ ব্যাপারে থানায় সাধারণ ডায়েরি করেন সুলতানের দ্বিতীয় স্ত্রীর সাবেক স্বামী।

বিষয়টি এলাকায় মিশ্র প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি করলে প্রকৃত ঘটনা জানতে সেখানে উপস্থিত হন যমুনা টিভির লালমনিরহাটের প্রতিনিধি আনিসুর রহমান লাডলা ও ক্যামেরাপারসন আহসান, প্রথম আলোর আব্দুর রব সুজন, এখন টেলিভিশনের মাহফুজুল ইসলাম বকুল এবং দৈনিক মাতৃভূমি পত্রিকার সাংবাদিক সাহিদ বদাশা বাবু।

সেখানে পরিবারের সঙ্গে কথা বলে ফেরার সময় সুলতান ও তার সহযোগীরাসহ একদল উচ্ছৃঙ্খল যুবক যমুনা টিভির ক্যামেরা এবং স্ট্যান্ড ছিনিয়ে নেন। পরে ওই স্ট্যান্ড দিয়েই সাংবাদিকদের ওপর হামলা চালান। এ সময় যমুনা টিভির প্রতিনিধি লাডলা গুরুতর আহত হন। তার মাথা ফেটে যায়। শারীরিকভাবে আহত হন অন্যরাও। আহতদের সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। সেখানে তারা চিকিৎসকদের তত্ত্বাবধানে রয়েছেন।

হামলায় আহত সাংবাদিকদের খোঁজখবর নিতে হাসপাতালে যান জেলা পরিষদ প্রশাসক ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. মতিয়ার রহমান ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সাখাওয়াত হোসেন সুমন খান।

দায়ীরা আওয়ামী লীগের সঙ্গে জড়িত থাকলেও তাদের বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এছাড়া আইনশৃঙ্খলাবাহিনীকেও তিনি দ্রুত ব্যবস্থা নিতে অনুরোধ করেন তারা।

পুলিশ সুপার আবিদা সুলতানা জানিয়েছেন, এ ঘটনায় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।

Link copied!