• ঢাকা
  • সোমবার, ১৫ এপ্রিল, ২০২৪, ২ বৈশাখ ১৪৩১,

উরুগুয়ে দলে জায়গা হয়নি কাভানি-সুয়ারেজের


সংবাদ প্রকাশ ডেস্ক
প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ৫, ২০২৩, ০৪:২১ পিএম
উরুগুয়ে দলে জায়গা হয়নি কাভানি-সুয়ারেজের
ছবি: সংগৃহীত

উরুগুয়ে চলতি বছরের সেপ্টেম্বর মাসে ২০২৬ বিশ্বকাপ বাছাই পর্ব খেলার জন্য ২৫ সদস্যের দল ঘোষণা করেছে। কোচ মার্সেলো বিয়েলাসের এই দলে জায়গা হয়নি অভিজ্ঞ লুইস সুয়ারেজ ও এডিনসন কাভানির। আর্জেন্টাইন এই কোচ ৩৬ বছর বয়সী সুয়ারেজ ও কাভানিকে বাদ দিয়ে দল নতুন করে ঢেলে সাজিয়েছেন।

বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে শুক্রবার (৮ সেপ্টেম্বর) চিলির বিপক্ষে প্রথম ম্যাচে মাঠে নামবে উরুগুয়ে। এরপর ১২ সেপ্টেম্বর দ্বিতীয় ম্যাচে দুবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নদের প্রতিপক্ষ ইকুয়েডর। এই দুই ম্যাচে দেখা যাবে না দেশটার অন্যতম সেরা দুই ফুটবলারদের।  

কাভানি এখন আর্জেন্টিনার ক্লাব বোকা জুনিয়র্সে খেলছেন। ব্রাজিলের ক্লাব গ্রেমিওতে খেলছেন সুয়ারেজ। উরুগুয়ের ইতিহাসে সর্বোচ্চ গোলদাতা সুয়ারেজ তিনি ১৩৭ ম্যাচে ৬৮ গোল করেছেন। ১৩৬ ম্যাচে ৫৮ গোল করে এ তালিকার দুই আছেন কাভানি। দেশটির জার্সিতে সর্বোচ্চ ম্যাচ খেলার রেকর্ডেও শীর্ষ তিনে আছেন দুই তারকা।

‘কোচদের কোচ’ হিসেবে খ্যাতি পাওয়া বিয়েলসা চমকে দেওয়া বিভিন্ন সিদ্ধান্তের জন্য মাঝেমধ্যেই আলোচিত হন। উরুগুয়ের এই স্কোয়াডে ৩০ বছর বয়সী গোলরক্ষক সের্হিও রোচেটকে রেখেছেন কোচ। এই ফুটবলারই উরুগুয়ের স্কোয়াডে সব থেকে বেশি বয়সী খেলোয়াড়।

কাভানি-সুয়ারেজ যেহেতু দলে থাকবেন না, তাই দলটার আক্রমণভাগের দায়িত্বে থাকবেন লিভারপুল ফরোয়ার্ড দারউইন নুনিয়েজ। ২০১০ থেকে ২০২২ সালের মধ্যে চারটি বিশ্বকাপ খেলেছেন সুয়ারেজ ও কাভানি। এ বছর গ্রেমিওর হয়ে একেবারে বাজে ফর্মে ছিলেন না লুইস সুয়ারেজ করেছেন ১৫ গোল। বোকা জুনিয়র্সের জার্সিতে কাভানি ৫ ম্যাচে করেছেন ১ গোল।

বিয়েলসার স্কোয়াড থেকে বাদ পড়ার পর ‘ইএসপিএন ব্রাজিল’–এর অনুষ্ঠান ‘বোলা দা ভেজ’–এ সাক্ষাৎকার দিয়েছেন সুয়ারেজ। বার্সেলোনার হয়ে ট্রেবল জয়ী সুয়ারেজ সেখানে বলেছেন, “তিনি (বিয়েলসা) আমাকে ফোন করেননি। না কোচ না ফেডারেশন—কেউ কোনো যোগাযোগ করেনি।”

সুয়ারেজের কথায় বোঝা যায় বিয়েলসার স্কোয়াডে সুযোগ না পাওয়াতে হতাশ হয়েছেন। সুয়ারেজ আরও বলেন, “ব্রাজিলে আসার পর ভাবতে পারেন, আমাকে এখনো হয়তো যোগ্যতার পরীক্ষা দিতে হবে। আমি শান্তই আছি। কারণ, এখনো অনেক কিছু দিতে পারি, সেটা বোঝানোর মতো পারফরম্যান্সই করছি।”

চিলি ও ইকুয়েডরের বিপক্ষে উরুগুয়ের স্কোয়াড:

গোলরক্ষক: সার্জিও রোচেত, ফ্রাঙ্কো ইসরায়েল ও সান্তিয়াগো মেলে;

ডিফেন্ডার: সান্তিয়াগো বুয়েনো, ব্রুনো মেন্দেজ, সেবাস্তিয়ান কাসারেস, পুমা রদ্রিগেজ, মাথিয়াস অলিভিয়েরা, হোয়াকুইন পিকুইয়ারেজ, মাতিয়াস ভিনা ও লুকাস ওলাজা;

মিডফিল্ডার: ফেদেরিকো ভালভার্দে, নাহিতান নান্দেজ, ফেলিপে কারবালো, এমিলিয়ানো মার্টিনেজ, মানুয়েল উগার্তে ও নিকোলাস দে লা ক্রুজ;

ফরোয়ার্ড: অগাস্টিন কানোব্বিও, ম্যাক্সিমিলিয়ানো আরাউহো, ফাকুন্দো তোরেস, ব্রিয়ান রদ্রিগেজ, ফাকুন্দো পেলিস্ত্রি, ক্রিস্টিয়ান অলিভিয়েরা, ম্যাক্সি গোমেজ ও ডারউইন নুনেজ।

Link copied!