• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ২৩ মে, ২০২৪, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১,

যুবলীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা


চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধি
প্রকাশিত: এপ্রিল ২০, ২০২৩, ১০:৪৭ এএম
যুবলীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা
নিহত মো. খাইরুল আলম জেম

চাঁপাইনবাবগঞ্জে মো. খাইরুল আলম জেম (৫০) নামের এক যুবলীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা।

বুধবার (১৯ এপ্রিল) সন্ধ্যা সোয়া ৬টার দিকে নবাবগঞ্জ পৌর এলাকার জনবহুল উদয়ন মোড়ে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত খাইরুল আলম জেলা যুবলীগের সাবেক শ্রমবিষয়ক সম্পাদক ও জেলার শিবগঞ্জ উপজেলার শিবগঞ্জ পৌরসভার মর্দানা গ্রামের মাইনুল আহসান এডু মাস্টারের ছেলে। তিনি ৯ নম্বর ওয়ার্ডের সাবেক কাউন্সিলর।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সন্ধ্যা সোয়া ৬টার দিকে বাড়ি ফেরার পথে ইব্রাহিমের মোটরসাইকেল গ্যারেজের সামনে পৌঁছালে কয়েকজন দুর্বৃত্ত পথ অবরোধ করে প্রথমে তাকে মারধর করে। পরে তাকে কুপিয়ে জখম করে। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা হাসপাতালে ভর্তি করান। পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

শহর যুবলীগের সাংস্কৃতিক সম্পাদক মামুন আলী বলেন, “জেম ভাইসহ আমরা কয়েকজন ইফতার কিনে উসকাঠিপাড়া মসজিদের সামনে দিয়ে যাওয়ার সময় কয়েকজন তাকে রাস্তায় ফেলে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে পালিয়ে যান। পরে পথচারী ও স্থানীয়দের সহযোগিতায় তাকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।”

চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা হাসপাতালের জরুরি বিভাগের মেডিকেল অফিসার চিকিৎসক মনিরা সুলতানা বলেন, “বুধবার সন্ধ্যায় গুরুতর আহত অবস্থায় জেম নামের একজনকে হাসপাতালে আনা হয়। পরে প্রাথমিক চিকিৎসা চলাকালে রাত ৭টার দিকে তিনি মারা যান। নিহত ব্যক্তির মাথায় বিভিন্ন দেশীয় অস্ত্রের আঘাতের চিহ্ন থাকায় রক্তশূন্য হয়ে তিনি মারা গেছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।”

চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সাজ্জাদ হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, শহরের উদয়ন মোড়ে একটি সংঘর্ষের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছিল। তবে কে বা কারা এ ঘটনা ঘটিয়েছে, তা এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি। অভিযান অব্যাহত রয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। মরদেহ মর্গে রাখা হয়েছে। ময়নাতদন্ত শেষে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Link copied!