• ঢাকা
  • সোমবার, ১৫ এপ্রিল, ২০২৪, ২ বৈশাখ ১৪৩১,

আমলা-ভিভদের পেছনে ফেলে শীর্ষে বাবর


সংবাদ প্রকাশ ডেস্ক
প্রকাশিত: আগস্ট ২৫, ২০২৩, ০৫:০০ পিএম
আমলা-ভিভদের পেছনে ফেলে শীর্ষে বাবর
ছবি: সংগৃহীত

আইসিসি ওয়ানডে ক্রিকেটে ব্যাটিংয় র‌্যাঙ্কিংয়ে এক নম্বরে আছেন পাকিস্তানি অধিনায়ক বাবর আজম। তিনি মাঠে নামা মানেই তার ব্যাটে রানের ফুল ঝুড়ি নতুন নতুন রেকর্ড গড়া। আফগানিস্তানের বিপক্ষে পাকিস্তানের দ্বিতীয় ওয়ানডে ম্যাচে বাবর আজম করেছেন নতুন এক রেকর্ড। ১০০ ইনিংস ব্যাট করে দ্রুততম রানের মালিক এখন তিনি। এই রেকর্ড গড়তে পিছনে ফেলেছেন হাশিম আমলা, ভিভ রিচার্ডসদের পিছনে ফেলে শীর্ষে উঠে এসেছেন পাক অধিনায়ক।

এই ম্যাচে মাঠে নামার আগেই বাবর ১০০ ইনিংসে ব্যাট করে দ্রুততম রান তোলার তালিকার শীর্ষে থাকা আমলাকে পেছনে ফেলেছিলেন। তাই তার শুধু এই ম্যাচে ব্যাট হাতে নামলেই ক্যারিয়ারে ১০০ ইনিংসে দ্রুততম রান তোলার তালিকায় শীর্ষে উঠে যাবেন। এই পাক ব্যাটার ১০০ ইনিংসে ব্যাট করে ৪৫টি ফিফটি আছে তার। যার মধ্যে ১৮টি সেঞ্চুরিও রয়েছে। তিনি এখন পর্যন্ত ৫৮ দশমিক ৪৩ গড়ে ৫ হাজার ১৪২ রান করেছেন।

দক্ষিণ আফ্রিকা খেলোয়াড় আমলা ১০০ ইনিংসে ২৫ ফিফটি ও ১৭ সেঞ্চুরিতে রান করেছিলেন ৪ হাজার ৯৪৬ রান। তালিকায় তৃতীয় স্থানের নামটা ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেটার ভিভিয়ান রিচার্ডসনের। ৫৬ দশমিক ০৭ গড়ে ভিভ করেছিলেন ৪ হাজার ৬০৭ রান। ১০০ ইনিংসে এই কিংবদন্তি ক্রিকেটারের সেঞ্চুরি ছিল ৮টি ও ফিফটি ৩৪টি। এ তালিকায় কোহলির অবস্থান নবম। যাকে বর্তমানে বাবর আজমের প্রতিদ্বন্দ্বী ক্রিকেটার হিসেবে ধরা হয়। তার প্রথম ১০০ ইনিংসে ৪৯ দশমিক ৭৬ গড়ে ২৩ ফিফটি আর ১৩ সেঞ্চুরিতে কোহলির ৪ হাজার ২৩০ করেছেন।

পাক অধিনায়ক আফগানদের সঙ্গে দ্বিতীয় ম্যাচে আরও এক রেকর্ড গড়েছেন। সেটা অবশ্য একা নন, পাকিস্তান ওপেনার ইমাম উল হককে সঙ্গে নিয়ে। ওয়ানডে ক্রিকেটে পাকিস্তানের সবচেয়ে বেশি সেঞ্চুরি এসেছে বাবর ও ইমামের জুটি থেকে। তারা মাত্র ৩৩ ইনিংসে জুটি গড়ে ১০টা সেঞ্চুরি এনে দিয়েছেন পাকদের। এর আগে দলটার হয়ে সবচেয়ে বেশি সেঞ্চুরি রানের জুটি গড়েছিলেন মোহাম্মদ ইউসুফ ও ইউনিস খান। তারা ৬৮ ইনিংস ব্যাট করে ৯টি সেঞ্চুরির জুটি গড়েন। এই তালিকায় তৃতীয় স্থানে আছে ইনজামাম উল হক ও ইউসুফের জুটি। তারা ৯৯ ইনিংসে পাকিস্তানকে শতরানের জুটি দিতে পেরেছেন আটবার।

Link copied!