• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০, ১১ শা’বান ১৪৪৫

এক ম্যাচ পর ছন্দপতন লিটনের


সংবাদ প্রকাশ ডেস্ক
প্রকাশিত: আগস্ট ৩, ২০২৩, ০৩:৪১ পিএম
এক ম্যাচ পর ছন্দপতন লিটনের
ছবি: সংগৃহীত

আগের ম্যাচে অর্ধশতক করা লিটন এক ম্যাচ পরেই ব্যাট হাতে ছন্দহীন। ছোট লক্ষ্য তাড়ায় ব্যাটিংয়ে নেমে দুই অঙ্ক ছুঁয়েই আউট হয়ে গেলেন তিনি। কানাডার গ্লোবাল টি-টোয়েন্টিতে বুধবার ১৩ বলে ২টি চারে ১০ রান করেন লিটন। মিসিসসাগা প্যান্থার্সের বিপক্ষে তার দল সারে জাগুয়ার্স অবশ্য জিতে গেছে ৮ উইকেটে।

টস হেরে ব্যাট করতে নামা মিসিসসাগার কোন ব্যাটার দাড়াঁতেই পারেনি জাগুয়ার্স বোলারদের সামনে। ১৪ ওভার ৩ বলে ৫৬ রানে গুটিয়ে যায় শোয়েব মালিকের দল। দলের হয়ে দুই অঙ্ক স্পর্শ করেছে দুই জন ব্যাটসম্যান। সর্বোচ্চ ১৭ রান আসে শ্রেয়াস মোভার ব্যাট থেকে। ১০ রান করেন নিখিল দত্ত। জাগুয়ার্সের হয়ে ৬ রানে ৩ উইকেট পেয়েছেন নেপালের লেগ স্পিনার সন্দ্বীপ লামিচানে।  

ছোট রান তাড়ায় দ্বিতীয় ওভারে জাতিন্দার সিংকে হারায় সারে। এরপরই উইকেটে যান লিটন। সিঙ্গেল নিয়ে খোলেন রানের খাতা।

চতুর্থ ওভারে পাকিস্তানের লেগ স্পিনার উসমান কাদিরের চতুর্থ  বলে লিটন চার মারেন রিভার্স সুইপ করে। পরের ওভারে কানাডার মিডিয়াম পেসার সিসিল পারভেজকে ফ্লিক করে চার মারেন লেগ সাইড দিয়ে।

ওই ওভারেই ক্যাচ দিয়ে শেষ হয় লিটনের ইনিংস। অফ স্টাম্পের বল লেগ সাইডে খেলার চেষ্টায় বল আকাশে তোলেন তিনি। সহজ ক্যাচ মুঠোয় জমান শোয়েব মালিক।

লিটনের বিদায়ের পর দলকে জয়ের বন্দরে পৌঁছে দেন দুই পাকিস্তানি মোহাম্মদ হারিস ও ইফতিখার। ৬৬ বল হাতে রেখেই লক্ষ্যে পৌঁছে যায় সারে। ২৩ বলে অপরাজিত ৩৭ রানের ইনিংস খেলেন ওপেনার হারিস।

সাত ম্যাচে চার জয়ে ১০ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে থেকেই প্রাথমিক পর্ব শেষ করল সারে। 

ম্যাচ সেরা হয়েছেন লেগ স্পিনার সন্দ্বীপ লামিচানে।

Link copied!