• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ২৮ মে, ২০২৪, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ১৯ জ্বিলকদ ১৪৪৫

কঙ্গোতে সন্ত্রাসীদের হামলায় ২০ জন নিহত


সংবাদ প্রকাশ ডেস্ক
প্রকাশিত: এপ্রিল ৯, ২০২৩, ১১:৫৮ এএম
কঙ্গোতে সন্ত্রাসীদের হামলায় ২০ জন নিহত

কঙ্গোর পূর্বাঞ্চলে ইসলামিক স্টেটের হামলায় ২০ জন নিহত হয়েছেন। শুক্রবার বিকেল ৪টার দিকে কৃষকদের উপর এ হামলার ঘটনা ঘটে। রোববার (৯ এপ্রিল) বার্তাসংস্থা রয়টার্স ও এএফপি এ খবর জানিয়েছে।

এতে বলা হয়, স্থানীয় নেতা প্যাট্রিক মুকোহ বলেছেন, অ্যালাইড ডেমোক্রেটিক ফোর্স (এডিএফ) শুক্রবার বিকেল ৪টার দিকে এনিবুলা গ্রামের কৃষকদের উপর হামলা চালায়। শহরের প্রায় ৩০ কিলোমিটার পশ্চিমে ওই স্থানে ২১টি পুরুষ ও মহিলাদের মৃতদেহ পাওয়া গেছে।

ইসলামিক স্টেট তাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলে এক বিবৃতিতে হামলার দায় স্বীকার করেছে।

রয়টার্স বলছে, বেসামরিক নাগরিকদের বিরুদ্ধে হওয়া এই ধরনের সহিংসতার জন্য সেনাবাহিনী এবং স্থানীয় কর্তৃপক্ষ উগান্ডার সশস্ত্র গোষ্ঠী অ্যালাইড ডেমোক্রেটিক ফোর্সেস (এডিএফ)-কে দায়ী করে থাকে। কঙ্গোর পূর্বাঞ্চলীয় এই গোষ্ঠীটি ইসলামিক স্টেটের প্রতি আনুগত্যের অঙ্গীকার করেছে।

বেনি টেরিটরির সামরিক প্রশাসক কর্নেল চার্লস ওমেওঙ্গা বলেছেন, “শুক্রবার আমরা গ্রামে প্রায় ২০ জনের মৃতদেহ উদ্ধার করেছি।” তিনি এই প্রাণহানির জন্য এডিএফকে অভিযুক্ত করেন।

অন্যদিকে স্থানীয় অ্যাক্টিভিস্ট জানভিয়ের কাসেরেকা কাসাইরিও জানান, যেখানে হামলা হয়েছে তার কাছের একটি হাসপাতালে ২২টি মৃতদেহ পৌঁছেছে।

উগান্ডার সশস্ত্র গোষ্ঠী এডিএফ কঙ্গোর পূর্বাঞ্চলে গত কয়েক বছর ধরেই হামলা চালাচ্ছে। কঙ্গোর সেনাবাহিনী এবং জাতিসংঘ শান্তিরক্ষীদের ক্রমবর্ধমান হস্তক্ষেপ সত্ত্বেও কঙ্গোর পূর্বাঞ্চল বছরের পর বছর ধরে ক্রমাগত সহিংসতার মধ্যে রয়েছে এবং গত শুক্রবারের ওই প্রাণহানি ধারাবাহিক অস্থিতিশীলতারই সর্বশেষ ঘটনা।

জাতিসংঘের এক হিসেবে দেখা গেছে ২০১৯ সালের শুরু থেকে এখন পর্যন্ত তাদের হাতে এক হাজারের বেশি সাধারণ মানুষ নিহত হয়েছে।

২০০৩ সালে গৃহযুদ্ধের আনুষ্ঠানিক অবসান হলেও ডিআর কঙ্গোর পূর্বাঞ্চলীয় সীমান্তে অবস্থিত তিনটি দেশ উগান্ডা, রুয়ান্ডা ও বুরুন্ডিতে বিভিন্ন ধরনের শতাধিক সশস্ত্র গোষ্ঠী সক্রিয় রয়েছে।

 

Link copied!