• ঢাকা
  • রবিবার, ১৪ এপ্রিল, ২০২৪, ১ বৈশাখ ১৪৩১, ৪ শাওয়াল ১৪৪৫

পাকিস্তানকে টপকে র‍্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে ভারত


সংবাদ প্রকাশ ডেস্ক
প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ২৩, ২০২৩, ০২:৪০ পিএম
পাকিস্তানকে টপকে র‍্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে ভারত
ছবি: সংগৃহীত

ওয়ানডে বিশ্বকাপের আগে তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের প্রথমটিতে অস্ট্রেলিয়াকে ৫ উইকেটে হারিয়েছে ভারত। ম্যাচ জয়ের পর বড় সুসংবাদ পেয়েছে ম্যান ইন ব্লুরা। পাকিস্তানকে টপকে ওয়ানডে র‍্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে উঠে এসেছে রোহিত শর্মা, বিরাট কোহলিরা। টেস্ট ও টি-টোয়েন্টিতে আগেই র‍্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে ছিল ভারত।

মোহালিতে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে মোহাম্মাদ শামির ক্যারিয়ার সেরা বোলিংয়ে অস্ট্রেলিয়া ২৭৬ রান তুলে অল-আউট হয়ে যায়। জবাবে ভারতের ১৪২ রানের ওপেনিং জুটির কল্যাণে ৫ উইকেট আর ৮ বল বাকি থাকতেও টপকে যায় লোকেশ রাহুলের দল।

এদিন অস্ট্রেলিয়া আগে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই হারায় মিচেল মার্শকে। ৪ রান করে এই অলরাউন্ডার ফেরেন শামির বলে। এরপর ডেভিড ওয়ার্নারের সঙ্গে ১০৬ বলে ৯৪ রানের জুটি গড়েন চোট থেকে ফেরা স্টিভ স্মিথ। ওয়ার্নার ফিফটি পেলেও শামির বলে স্মিথের ইনিংস থামে ৬০ বলে ৪১ রানে। চারে নামা মারনাস লাবুশেনের ব্যাট থেকে এসেছে ৩৯ রান।

১৫৭ রানে চতুর্থ উইকেট হারানো অস্ট্রেলিয়া পরের উইকেট হারায় ১৮৬ রানে। ক্যামেরন গ্রিন রানআউটে কাটা পড়ার আগে করেন ৩১ রান। এরপর অস্ট্রেলিয়াকে পথ দেখাতে থাকেন জশ ইংলিস ও মার্কাস স্টয়নিস। গড়েন ৪৩ বলে ৬২ রানের জুটি। তবে দারুণ মঞ্চ তৈরি করেও শেষে ঝড় তুলতে পারেননি অস্ট্রেলিয়ার ব্যাটসম্যানরা। ৪৬.৩ ওভার শেষে সফরকারীদের রান ছিল ৫ উইকেটে ২৪৮। ক্রিজে ছিলেন ইংলিস ও স্টয়নিস। তবে জাসপ্রীত বুমরাহ ও শামির দুর্দান্ত বোলিংয়ে অস্ট্রেলিয়া থামে ২৭৬ রানে। শেষ দিকে প্যাট কামিন্স ৯ বলে ২১ রান করলে ভারতকে ২৭৭ রানের টার্গেট দিতে সক্ষম হয় অজিরা। অজিদের অল-আউট করতে শামির ক্যারিয়ারসেরা বোলিং করে ৫১ রান খরচে নেন ৫ উইকেট।

মোহালিতে স্বাগতিকদের দারুন শুরু এনে দেন দুই ওপেনার শুবমান গিল ও রুতুরাজ গায়কোয়াড়। এই জুটি থেকে ভারতের স্কোরবোর্ডে যোগ হয় ১৩০ বলে ১৪২ রান। দুই ওপেনার ফিফটি পেলেও অবশ্য কেউই সেঞ্চুরি পাননি। অস্ট্রেলিয়ান লেগ স্পিনার অ্যাডাম জাম্পার বলে সুইপ খেলতে গিয়ে ৭১ রানে এলবিডব্লু হন রুতুরাজ। জাম্পার বলেই ৬৩ বলে ৭৪ রানের ইনিংস খেল বোল্ড হন গিল।

উদ্বোধনী জুটি ভাঙার পর শ্রেয়াস আইয়ার, ঈশান কিষানরা বেশিক্ষণ টিকতে না পালেও ভারত রান তাড়া করতে বেগ পেত হয়নি। আইয়ার কিষানরা ফিরে যাওয়ার পর ৮৫ বলে ৮০ রানের জুটি গড়েন রাহুল ও সূর্যকুমার যাদব। সূর্যকুমার ৫০ রানে ফিরে যান। টি-টোয়েন্টি স্পেশালিস্ট এই ব্যাটার দেড় বছর ও ১৯ ইনিংস পর ওয়ানডেতে ফিফটির দেখা পেলেন। সূর্যকুমার ফিরে গেলেও রাহুল ৫৮ * রানে অপরাজিত থেকে ম্যাচ জিতে মাঠ ছাড়েন। অজিদের হয়ে জাম্পা ৫৭ রান দিয়ে ২ উইকেট শিকার করেন।

Link copied!