• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল, ২০২৪, ৩ বৈশাখ ১৪৩১, ৬ শাওয়াল ১৪৪৫

ঈদের ছুটির হিসাব চলছে—৫, ৬ ও ১০ দিন


সংবাদ প্রকাশ ডেস্ক
প্রকাশিত: মার্চ ২৮, ২০২৪, ০৩:০১ পিএম
ঈদের ছুটির হিসাব চলছে—৫, ৬ ও ১০ দিন
বাংলাদেশ সরকারের লোগো

রোজার প্রথমার্ধ শেষ হয়েছে। কর্মজীবীরা এখন মুখিয়ে আছে বাড়ি ফিরতে। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ইতিমধ্যে ঈদের ছুটি শুরু হয়েছে। এখন সরকারি চাকরিজীবীরা কষছেন ছুটির হিসাব। এবার ঈদের ছুটি লম্বা হতে পারে। সঙ্গে যুক্ত হবে বাংলা নববর্ষের ছুটি।

১২ মার্চ শুরু হয়েছে রমজান মাস। মাসটি ৩০ দিন পূর্ণ হলে ঈদুল ফিতর উদ্‌যাপন করতে হবে ১১ এপ্রিল এবং রমজান মাস ২৯ দিন হলে ঈদুল ফিতর অনুষ্ঠিত হবে ১০ এপ্রিল ঈদের দিন সাধারণ ছুটিতে থাকে দেশ। এ ছাড়া নির্বাহী আদেশে ঈদের আগের ও পরের দিন ছুটি ভোগ করেন সরকারি কর্মচারীরা।

৫ দিন

সে হিসাবে ঈদ ১১ এপ্রিল হলে ওই দিন বৃহস্পতিবার। সে ক্ষেত্রে ঈদের আগের দিন বুধবার এবং পরদিন শুক্রবার ছুটি হবে ঈদের। ১৩ এপ্রিল (শনিবার) সাপ্তাহিক ছুটি। ১৪ এপ্রিল (রোববার) নববর্ষের সরকারি ছুটিতে থাকবে দেশ। এতে ঈদ ও নববর্ষের মিলে টানা পাঁচ দিনের ছুটিতে মিলবে।

৬ দিন

এদিকে রমজান মাস ২৯ দিন হলে ঈদ অনুষ্ঠিত হবে ১০ এপ্রিল বুধবার। সে ক্ষেত্রে মঙ্গল থেকে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত ঈদের ছুটি। পরে শুক্র ও শনিবার সাপ্তাহিক ছুটি এবং রোববার নববর্ষের ছুটি হবে। এতে টানা ছয় দিনের ছুটি পাবেন সরকারি কর্মচারীরা।

১০ দিন

এ ছাড়া রমজান মাস ২৯ দিনে হলে অর্থাৎ মঙ্গলবার থেকে ছুটি শুরু হলে ঈদের ছুটি আরও লম্বা করার সুযোগ রয়েছে সরকারি চাকরিজীবীদের। কারণ, এর আগের রোববার (৭ এপ্রিল) পবিত্র শবে কদরের ছুটি। তার আগে ৫ ও ৬ (শুক্র ও শনিবার) সাপ্তাহিক ছুটি। সেই হিসাবে ৮ এপ্রিল (সোমবার) এক দিন কর্মদিবস। ওই দিন বাড়তি ছুটি নিতে পারলে টানা ১০ দিন ছুটি কাটাতে পারবেন সরকারি চাকরিজীবীরা।

এবার ঈদুল ফিতরে সরকারি চাকরিজীবীদের সমান কারখানা শ্রমিকরা ছুটি পাবেন বলে জানিয়েছেন শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী নজরুল ইসলাম চৌধুরী। বুধবার (২৭ মার্চ) সচিবালয়ে মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে সাংবাদিকদের ব্রিফিংয়ের সময় তিনি এ কথা বলেন।

কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী বলেন, মালিক ও শ্রমিকের মধ্যে আলোচনার ভিত্তিতে সরকারি ছুটির সঙ্গে সমন্বয় করে যাতায়াতের সুবিধা অনুযায়ী ঈদের ছুটি দিতে হবে। শ্রমিকদের ছুটি কোনোভাবেই ঈদের সরকারি ছুটির চেয়ে কম হবে না।

ঈদযাত্রায় ভোগান্তি এড়াতে ঈদুল ফিতরের ছুটি দুদিন বাড়ানোর দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ যাত্রী কল্যাণ সমিতি। বুধবার (২৭ মার্চ) সংবাদ সম্মেলন করে এ দাবি জানান তারা।

ইতিমধ্যে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও কর্মচারীদের ঈদুল ফিতরের ছুটি শুরু হয়েছে মঙ্গলবার (২৫ মার্চ) থেকে। রমজান, স্বাধীনতা দিবস, ঈদুল ফিতরসহ বেশ কয়েকটি ছুটি সমন্বয় করে থেকে এই ছুটি শুরু হয়েছে।

Link copied!