• ঢাকা
  • সোমবার, ২০ মে, ২০২৪, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১,

ইউক্রেনে রাশিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র হামলা, ১৫টি ধ্বংসের দাবি কিয়েভের


সংবাদ প্রকাশ ডেস্ক
প্রকাশিত: মে ১, ২০২৩, ০৫:২৯ পিএম
ইউক্রেনে রাশিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র হামলা, ১৫টি ধ্বংসের দাবি কিয়েভের

ইউক্রেনে নতুন করে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে রাশিয়া। সোমবার গভীর রাতে ইউক্রেন অভিমুখে এসব ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করা হয়। তবে রাশিয়ার নিক্ষিপ্ত এসব ক্ষেপণাস্ত্রের মধ্যে ১৫টি ধ্বংস করে দেওয়ার দাবি করেছে ইউক্রেনের সামরিক বাহিনী।

সোমবার (১ মে) ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্স এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে।

কিয়েভ শহরের কর্মকর্তারা টেলিগ্রাম মেসেজিং অ্যাপে লিখেছেন, রাজধানী কিয়েভ অভিমুখে ধেয়ে আসা সব ক্ষেপণাস্ত্র ধ্বংস হয়ে গেছে। গত তিন দিনের মধ্যে এ নিয়ে শহরটিতে দ্বিতীয় দফায় হামলা চালানো হলো বলেও জানিয়েছেন তারা।

কিয়েভ শহর প্রশাসন বলেছে, “কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনি এবং আবাসিক স্থাপনা বা অবকাঠামোর ধ্বংস বা ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি।”

এদিকে ডিনিপ্রো আঞ্চলিক পরিষদের প্রধান মাইকোলা লুকাশুক বলেছেন, রাশিয়া রাতের আঁধারে ইউক্রেনের যেসব অঞ্চলে ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করেছে তার মধ্যে ডিনিপ্রপেট্রোভস্কও রয়েছে। এয়ার ডিফেন্স ক্রুরা সাতটি ক্ষেপণাস্ত্র গুলি করে ভূপাতিত করেছে, কিন্তু এই ঘটনায় ২৫ জন আহত হয়েছেন এবং তারা চিকিৎসা সহায়তা চেয়েছেন।

তিনি আরও জানিয়েছেন, পূর্ব ইউক্রেনের পাভলোহরাদ শহরেও রাতের আঁধারে দু’টি ক্ষেপণাস্ত্র আঘাত হেনেছে। এতে একটি শিল্পপ্রতিষ্ঠান, ১৯টি অ্যাপার্টমেন্ট বিল্ডিং এবং ২৫টি প্রাইভেট বিল্ডিংসহ অন্যান্য অবকাঠামো ক্ষতিগ্রস্ত বা ধ্বংস হয়েছে।

রাশিয়া বলেছে, সাম্প্রতিক কিছু হামলা দীর্ঘ পরিকল্পিত পাল্টা আক্রমণের জন্য কিয়েভের পরিকল্পনাকে বাধাগ্রস্ত করার লক্ষ্যে চালানো হয়েছে।

এর আগে গত শুক্রবার রাশিয়া ইউক্রেনজুড়ে বেশ কিছু শহরে বড় ধরনের হামলা চালায়। এতে অন্তত ২৫ জন নিহত হয়। গত কয়েক মাসের মধ্যে এটি ছিল এ ধরনের প্রথম হামলা। এরপর রুশ-নিয়ন্ত্রিত ক্রিমিয়ার এক তেলের ডিপোতে ড্রোন হামলায় বিশাল অগ্নিকাণ্ডের সৃষ্টি হয়।

Link copied!