• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ১৮ আগস্ট, ২০২২, ৩ ভাদ্র ১৪২৯

স্বপ্নপূরণে জাবিতে ভর্তি পরীক্ষা দিলেন ৫৫ বছরের বেলায়েত


জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি
প্রকাশিত: জুলাই ৩১, ২০২২, ০৪:২০ পিএম
স্বপ্নপূরণে জাবিতে ভর্তি পরীক্ষা দিলেন ৫৫ বছরের বেলায়েত

বেলায়েত শেখের স্বপ্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়বেন। নিজের স্বপ্নপূরণ করতে বয়সের বাধা পেরিয়ে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে (জাবি) ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নিয়েছেন ৫৫ বছর বয়সী বেলায়েত।

রোববার (৩১ আগস্ট) সকাল ৯টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান ভবনের ২৪৬ নম্বর কক্ষে পরীক্ষা দেন তিনি।

পরীক্ষা শেষে বেলায়েত বলেন, “ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে (ঢাবি) ভর্তি পরীক্ষা দিয়েছিলাম। তবে সেখানে চান্স হয়নি। পরে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) পরীক্ষা দিয়েছি। সেখানে পরীক্ষা মোটামুটি ভালো হয়েছে। তবে ঢাবি ও রাবি থেকে জাবিতে ভালো পরীক্ষা দিয়েছি।”

জাবি ক্যাম্পাস বেশ সাজানো গোছানো মনে হয়েছে তার কাছে।

পরীক্ষার হলের পরিবেশ সুন্দর ছিল, শিক্ষকরাও সহযোগিতা করেছেন উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন, “আমি এ বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির সুযোগ পাওয়ার ব্যাপারে আশাবাদী।”

বেলায়েত শেখ আরও বলেন, “আমি সব মিলিয়ে ৫৩টি নৈর্ব্যক্তিকে ঠিক দিয়েছে। আশা করি, ভালো ফল আসবে। যদি জাবিতে ভর্তির সুযোগ পাই, তাহলে সাংবাদিকতা ও গণমাধ্যম অধ্যায়ন বিভাগে পড়তে চাই।”

এদিকে জাবির ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নিতে আসার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় আহত হন বেলায়েত।

জানা যায়, বেলায়েত শনিবার (৩০ জুলাই) সকালে গাজীপুরের শ্রীপুর থেকে বাসে করে রওয়ানা দেন। এ সময় শ্রীপুর থেকে ভবানীপুরগামী একটি বাসের ধাক্কায় মেরুদণ্ডে প্রচণ্ড ব্যথা পান তিনি।

এর আগে, গত ১১ জুন ঢাবির সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদভুক্ত ‘ঘ’ ইউনিটে পরীক্ষা দেন তিনি। তবে তিনি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে পারেননি। পরে গত ২৬ জুলাই রাবির ‘এ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নেন তিনি।

১৯৬৮ সালে জন্ম নেওয়া বেলায়েত শেখের ছোট থেকেই পড়াশোনার প্রতি আগ্রহ ছিল। প্রবল আগ্রহ থাকলেও দারিদ্র্যের কারণে সুযোগ উঠেনি। ১৯৮৩ সালে এসএসসি পরীক্ষার্থী ছিলেন তিনি। কিন্তু নানা প্রতিবন্ধকতার কারণে উচ্চশিক্ষা নেওয়ার স্বপ্ন জলাঞ্জলি দিতে হয় তাকে। ২০১৭ সালে ৫০ বছর বয়সে ভর্তি হন নবম শ্রেণিতে।

এ বছর বেলায়েত ঢাকা মহানগর কারিগরি কলেজ থেকে উচ্চমাধ্যমিকে (এইচএসসি-ভোকেশনাল) জিপিএ ৪ দশমিক ৪৩ নিয়ে পাস করেন। এর আগে, ২০১৯ সালে বাসাবোর দারুল ইসলাম আলিম মাদ্রাসা থেকে জিপিএ ৪ দশমিক ৫৮ পেয়ে মাধ্যমিক সমমান দাখিল (ভোকেশনাল) পাস করেন।